Home » » মনমোহন সিংকে মানুষ দুঃখী মানুষ হিসেবে মনে রাখবে: অমর্ত্য সেন @মানবজমিন

মনমোহন সিংকে মানুষ দুঃখী মানুষ হিসেবে মনে রাখবে: অমর্ত্য সেন @মানবজমিন

Written By setara on Saturday, May 3, 2014 | 10:35 AM

নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেন মনে করেন, প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং একজন ট্রাজিক ব্যাক্তি হয়ে উঠেছেন। দুর্নীতি দূর করার ক্ষেত্রে তিনি তার উচ্চাশা পূরণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন। কাজ করার ক্ষেত্রে পর্যাপ্ত রাজনৈতিক ক্ষমতা না থাকায় তিনি অসহায়তার শিকার হয়েছেন। অমর্ত্য সেন স্পষ্ট করে জানিয়েছেন যে, দুর্ণীতি দূর করার ইচ্ছে থাকলেও মনমোহন সিংয়ের হাতে ছিল না রাজনৈতিক ক্ষমতা। আর তাই তাকে যারা চেনেন তারা তাকে একজন দুঃখী মানুষ হিসেবেই মনে রাখবেন। দীর্ঘ ১৩ বছর বাদে এবার শান্তিনিকেতেন অমর্ত্য সেন লোকসভা নির্বাচনে  ভোট দিয়েছেন। ভোট দেবার পর আগের মতই তিনি জানিয়েছেন, নরেন্দ্র মোদীকে তিনি প্রধানমন্ত্রী দেখতে চান না। তিনি চান ভারতের প্রধানমন্ত্রী হবেন একজন ধর্মনিরপেক্ষ ব্যাক্তি। তবে হিন্দুস্থান টাইমসের সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশকুমারের মধ্যে ভারতের প্রধানমন্ত্রী হবার যোগ্যতা রয়েছে। বিহারে নীতিশকুমার হয়তো জিততে পারবেন না, তাই বলে তিনি সফল নন একথা বলা যায় না।  অমত্য সেন অবশ্য প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মনমোহনের প্রশংসাও করেছেন। তিনি বলেছেন, শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতে তিনি এমন কিছু উদ্যোগ নিযেচেন যা প্রশংসার যোগ্য। তিনি মনে করেন, চীনের মত দেশের উন্নয়নের হারকে প্রায় ধরে ফেলার ক্ষেত্রে ভারতের দ্বিতীয ইউপিএ সরকার দেশের অর্থনীতিকে  সর্বোচ্চ হারে নিয়ে যেতে সফল হয়েছে। ভারতের নতুন সরকারের সামনে দু ধরণের ইস্যু থাকবে বলে তিনি জানিয়েচেন। একটি হল স্বল্পমেয়াদী, অন্যটি হল দীর্ঘমেয়াদী। স্বল্পমেয়াদী লক্ষ্য হতে হবে সমৃদ্ধিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া এবং মুদ্রস্ফীতিকে কমানোর জন্য বিভিন্ন ব্যবস্থা গ্রহন। তবে সরকারের দীর্ঘমেয়াদী নীতির পরিবর্তন না করে এটা করা খুব সহজ নয় বলে মনে করেন নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ। ভারতের অর্থনীতিকে বিশ্বের প্রতিযোগিতামূলক অবস্থায় নিয়ে আসাটাও খুব জরুরি বলে তিনি জানান।

0 comments:

Post a Comment